Notice Board

2024-02-24

Notice for Masters Final Special Exam Form Fillup-2020 and Money Deposit.

2024-02-24

Notice for Masters Final Special Exam Form Fillup-2020 and Money Deposit.

2024-02-24

25 ফেব্রুয়ারি 2024 তারিখ আলোচনা সভার বিজ্ঞপ্তি

2024-02-24

পবিত্র শব-ই-বরাত উপলক্ষে কলেজ বন্ধের বিজ্ঞপ্তি

2024-02-22

ঢাকা কলেজ বার্ষিকী 2024 এ লেখা পাঠানোর বিজ্ঞপ্তি

আমাদের পরিচিতি

ভারতে আধুনিক শিক্ষা বিস্তারের সাথে ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানি ও ব্রিটিশ শাসন নিবিড়ভাবে সম্পর্কিত। ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানির শাসনে প্রাধান্য পেত মুদ্রা পাচার ও বাণিজ্য। তবুও তারা ভারতীয়দের জন্য ১৭৮১ সালে কলকাতা মাদ্রাসা, ১৭৯১ সালে বারাণসীতে ‘সংস্কৃত কলেজ’ এবং ১৮০০ সালে ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানির কর্মচারীদের জন্য ‘ফোর্ট উইলিয়াম কলেজ’ প্রতিষ্ঠা করে। কিন্তু ‘চার্টার অ্যাক্ট-১৮১৩’ এর মাধ্যমে ব্রিটিশ সরকার কর্তৃক ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানিকে ভারতীয়দের শিক্ষার প্রতি মনোযোগী হওয়ার নির্দেশ দেওয়া হ ...

অধ্যক্ষ

প্রফেসর মোহাম্মদ ইউসুফ

মানব কল্যাণ, অসাম্প্রদায়িক চেতনা, সামাজিক সৌহার্দ্যপূর্ণ সম্পর্ক, উন্নততর জীবন ও মানবিক মূল্যবোধ বিকাশের ক্ষেত্রে শিক্ষার ভূমিকা অনস্বীকার্য। শিক্ষাই পারে জীবনের গতিপথের সার্বিক পরিবর্তন করতে। শিক্ষাকে উপজীব্য করে অনেক জাতিই বিশ্ব দরবারে প্রশংসিত ও প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। বিশ্ব আজ দ্রুত পরিবর্তনের ধারায় ধাবমান। এই পরিবর্তনকে মানিয়ে নিতে আমাদেরকেও সামনের দিকে এগিয়ে যেতে হবে। বিশ্বায়নের চ্যালেঞ্জকে মাথায় নিয়ে বর্তমান সরকারের 'রূপকল্প ২০২১' বাস্তবায়নের পর সবাইকে সমান তালে এগিয়ে যেতে হবে পরবর্তী লক্ষ্যে। ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত রাষ্ট্র গঠনের যে সোপানে আমাদের যাত্রা শুরু হয়েছে তার সফল পরিসমাপ্তিতে আজকের ছাত্র সমাজকেই অগ্রণী ভূমিকা পালন করতে হবে। সেই প্রচেষ্টায় ঢাকা কলেজ একটি উজ্জ্বল নাম। বর্তমানে এই প্রতিষ্ঠানের নতুন উদ্যোগ 'অনলাইনকার্যক্রম' সেই প্রচেষ্টাকে আরও বহুগুণ বাড়িয়ে দিয়েছে। সরকার ঘোষিত ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মাণে প্রতিষ্ঠানের পথ চলা হোক দীপ্তিময়। এ প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা নিজ নিজ ক্ষেত্রে একজন সফল মানুষ হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হবে এ আমার প্রত্যাশা।

উপাধ্যক্ষ

প্রফেসর এ টি এম মইনুল হোসাইন

মানব কল্যাণ, অসাম্প্রদায়িক চেতনা, সামাজিক সৌহার্দ্যপূর্ণ সম্পর্ক, উন্নততর জীবন ও মানবিক মূল্যবোধ বিকাশের ক্ষেত্রে শিক্ষার ভূমিকা অনস্বীকার্য। শিক্ষাই পারে জীবনের গতিপথের সার্বিক পরিবর্তন করতে। শিক্ষাকে উপজীব্য করে অনেক জাতিই বিশ্ব দরবারে প্রশংসিত ও প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। বিশ্ব আজ দ্রুত পরিবর্তনের ধারায় ধাবমান। এই পরিবর্তনকে মানিয়ে নিতে আমাদেরকেও সামনের দিকে এগিয়ে যেতে হবে। বিশ্বায়নের চ্যালেঞ্জকে মাথায় নিয়ে বর্তমান সরকারের 'রূপকল্প ২০২১' বাস্তবায়নের পর সবাইকে সমান তালে এগিয়ে যেতে হবে পরবর্তী লক্ষ্যে। ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত রাষ্ট্র গঠনের যে সোপানে আমাদের যাত্রা শুরু হয়েছে তার সফল পরিসমাপ্তিতে আজকের ছাত্র সমাজকেই অগ্রণী ভূমিকা পালন করতে হবে। সেই প্রচেষ্টায় ঢাকা কলেজ একটি উজ্জ্বল নাম। বর্তমানে এই প্রতিষ্ঠানের নতুন উদ্যোগ 'অনলাইনকার্যক্রম' সেই প্রচেষ্টাকে আরও বহুগুণ বাড়িয়ে দিয়েছে। সরকার ঘোষিত ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মাণে প্রতিষ্ঠানের পথ চলা হোক দীপ্তিময়। এ প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা নিজ নিজ ক্ষেত্রে একজন সফল মানুষ হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হবে এ আমার প্রত্যাশা।